অফবীট করোনা দেশ প্রথম পাতা

হায়দরাবাদের হাসপাতালে করোনা রোগীর হাতে আক্রান্ত ডাক্তার!

দেশে ফের চিকিৎসক নিগ্রহের ঘটনা। এ বার হায়দরাবাদে করোনাভাইরাস রোগীর হাতে মার খেলেন এক রেসিডেন্ট ডাক্তার। শুক্রবার শহরের গান্ধী হাসপাতালে এই ঘটনা ঘটেছে। আক্রমণকারী হাসপাতালেও ভাঙচুর চালায়। করোনা আতঙ্কে যখন প্রতিটি ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের দরজা ভক্তদের জন্য বন্ধ তখনও চূড়ান্ত ঝুঁকির মধ্যে দাঁড়িয়ে মানুষকে নিরলস পরিষেবা দিয়ে যাচ্ছেন চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী-সহ জরুরি পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা। সমাজের জন্য, মানুষের জন্য তাঁদের এই অবদানকে কুর্ণিশ জানাচ্ছে গোটা দেশ। তার মধ্যে হায়দরাবাদে চিকিৎসক নিগ্রহের ঘটনায় কোথাও একটা ছন্দপতন ঘটল।
তেলেঙ্গানার স্বাস্থ্যমন্ত্রী এতেলা রাজেন্দের জানিয়েছেন, করোনায় আক্রান্ত একই পরিবারের দুই সদস্যকে হায়দরাবাদের গান্ধী হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছিল। এর মধ্যে এক জনের মৃত্যু হয়। বুধবার হাসপাতালের রেসিডেন্ট ডাক্তারকে আক্রমণ করেন মৃতের আত্মীয় অন্য করোনা আক্রান্ত রোগী। হাসপাতালের দরজায় ভাঙচুর চালানো হয়। হাসপাতালের ন’তলার বিশেষ করোনা ওয়ার্ডে এই ঘটনা ঘটে।
গোটা ঘটনার নিন্দা করে রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেছেন, ‘কোনও অবস্থাতেই বিষয়টাকে আমরা হালকাভাবে নিচ্ছি না। আক্রমণকারীর বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করা হবে। নিজেদের জীবন ঝুঁকিতে ফেলে চিকিৎসকরা যখন আমাদের বাঁচাচ্ছেন তখন তাঁদের রক্ষা করা আমাদের দায়িত্ব এবং কর্তব্য।’
এ দিকে, চিকিৎসকের উপরে রোগীর আক্রমণের ঘটনার প্রতিবাদে ক্ষোভে ফেটে পড়েন হাসপাতালের চিকিৎসক এবং চিকিৎসাকর্মীরা। কর্মক্ষেত্রে নিরাপত্তাহীনতার অভিযোগ তোলেন তাঁরা। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষও ক্ষোভ উগড়ে দেয়। পরে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছন স্বয়ং শহরের পুলিশ কমিশনার। সেখানে ক্ষোভের মুখে পড়েন তিনি। পুলিশের তরফে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে কড�

Spread the love