প্রথম পাতা রাজনৈতিক লগডাউন

আর্থিক ক্ষতির কারণে নতুন প্যাসেঞ্জার ট্রেন চালাতে নারাজ রেল ।

আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয়ে ভারতীয় রেল সিদ্ধান্ত নিয়েছে নতুন প্যাসেঞ্জার ট্রেন অথবা কাজের জায়গাতে শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন চালু করবে না। মে মাসে চালু হয়েছিল ১৫ জোড়া প্যাসেঞ্জার ট্রেন। এর পরে ১ জুন থেকে আরও ১০০ জোড়া প্যাসেঞ্জার ট্রেন চালু হয়েছে। কিন্তু তাতে খুবই কম যাত্রী হচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে নতুন করে প্যাসেঞ্জার ট্রেন বাড়াতে রাজি নয় রেল। সংবাদমাধ্যম ‘দ্য প্রিন্ট’-কে এমনটাই জানিয়েছেন রেলবোর্ডের চেয়ারম্যান ভি কে যাদব।

আরও ট্রেন বাড়ানোর জল্পনা উড়িয়ে দিয়ে যাদব জানিয়েছেন, এখন যে ট্রেনগুলি চলছে তাতে মেরেকেটে ৬০ শতাংশ যাত্রী হচ্ছে। এছাড়া কাজের জায়গা থেকে বাড়ি ফেরা পরিযায়ী শ্রমিকদের আবার কাজের জায়গায় যাওয়ার স্পেশাল ট্রেন চালানোরও পরিকল্পনা নেই রেলের। এই মহূর্তে দেশে মোট ২৩০টি প্যাসেঞ্জার ট্রেন টাইম টেবল মেনে চলছে। রেলবোর্ডের চেয়ারম্যান বলেছেন, “ওই ট্রেনগুলিতে ৬০ শতাংশ আসনে যাত্রী হচ্ছে। যতদিন না এই ট্রেনগুলি যাত্রীপূর্ণ হচ্ছে ততদিন নতুন করে প্যাসেঞ্জার ট্রেন বাড়ানোর কোনও পরিকল্পনা নেই রেলের। ফাঁকা অথবা আংশিক পূর্ণ ট্রেন চালানোর কোনও প্রশ্নই নেই।” একই সঙ্গে তিনি বলেন, ট্রনে ভর্তি না হলেও যাত্রীদের রেল একটাই কথা বলতে চায়, খুব প্রয়োজন না হলে এখন ট্রেন সফর করার দরকার নেই।

Spread the love