জেলা দেশ প্রথম পাতা

বিশ্ব থিয়েটার দিবস বলে প্রধানমন্ত্রীকে নিশানা রাহুলের, ডুবন্ত জাহাজকে বাঁচানোর চেষ্টা বলে ট্যুইটে মোদীকে কটাক্ষ মমতার

নিজস্ব সংবাদদাতা: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ‘মিশন শক্তি’-র কথা ঘোষণা করার ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই তাঁকে বিঁধতে শুরু করলেন বিরোধীরা। কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী টুইট করে বললেন, ওয়েল ডান ডিআরডিও। আমরা আপনাদের জন্য গর্বিত। একইসঙ্গে মোদীকে তিনি কটাক্ষ করলেন, ‘হ্যাপি ওয়ার্ল্ড থিয়েটার ডে’। অর্থাৎ মোদী যেভাবে মহাকাশে কৃত্রিম উপগ্রহ ধ্বংসের কথা ঘোষণা করেছেন, তাকে নাটক বলেছেন কংগ্রেস সভাপতি।বুধবার বেলা ১২ টার কিছু পরে মোদী ঘোষণা করেন, ভারত স্পেস পাওয়ারদের এলিট ক্লাবে যোগ দিয়েছে। ভারতের বিজ্ঞানীরা মাত্র তিন মিনিটের মধ্যে রকেট ছুঁড়ে মহাকাশে একটি লো অরবিট স্যাটেলাইটকে ধ্বংস করেছেন। এই প্রকল্পের নাম ছিল ‘মিশন শক্তি’।

তবে প্রথম যে নেতারা মোদীর ভাষণের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন, তাঁদের অন্যতম রাহুল গান্ধী। তিনি বলতে চেয়েছেন, মোদী নাটক করছেন। সমাজবাদী পার্টির নেতা অখিলেশ সিং যাদবও টুইট করেছেন, প্রধানমন্ত্রী বাস্তব নানা ইস্যু থেকে মানুষের মনোযোগ অন্যদিকে ঘুরিয়ে দিতে চান।এরপরেই বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ট্যুইটে লেখেন, “ভারতের মিশন কর্মকাণ্ড বছরের পর বছর ধরে বিশ্বমানের। আমরা সবসময় আমাদের বিজ্ঞানীদের নিয়ে গর্বিত।” তারপরেই প্রধানমন্ত্রীকে তোপ দেগে মুখ্যমন্ত্রী লেখেন, “মহাকাশ গবেষণা এবং তার উন্নতি একটা চলমান প্রক্রিয়া। কিন্তু মোদী যা করেন, ঠিক সব কৃতিত্ব নিজে নিয়ে নিয়েছেন। কিন্তু এই কৃতিত্ব আসলে আমাদের মহাকাশ বিজ্ঞানী ও গবেষকদের।” এখানেই থামেননি মমতা।

সেই সঙ্গে বলেন, “এই সরকারের এক্সপায়ারি ডেট ফুরিয়ে গিয়েছে। তাই  বিজেপির ডুবন্ত জাহাজকে অক্সিজেন দিতেই এ দিন এই সমস্ত বলেছেন প্রধানমন্ত্রী।”

 

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।