জেলা প্রথম পাতা রাজ্যের খবর

স্কুলে ছাত্রীদের সঙ্গে লাগাতার যৌন হেনস্থা, শিক্ষককে অর্ধনগ্ন করে মারধর, গ্রেফতার করল পুলিশ

নিজস্ব প্রতিনিধি : স্কুলের মধ্যে ছাত্রীদের সঙ্গে দিনের পর দিন যৌন হেনস্থা। এই বিষয়ে প্রধান শিক্ষিকাকে জানিয়েও কোনও লাভ হয়নি। শেষপর্যন্ত স্কুল চত্বরেই অভিযুক্ত শিক্ষককে অর্ধনগ্ন করে বেধড়ক মারধর করলেন অভিভাবকরা। ঘটনাটি ঘটেছে বাঁকুড়ার ইন্দাসে।

সরকারি এই স্কুলে দীর্ঘদিন শিক্ষকতা করছেন ফিরোজ খান নামে এক ব্যক্তি। অভিভাবকদের দাবি, প্রতিদিন টিফিনের সময়ে ক্লাসে ডেকে চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রীদের সঙ্গে অশালীন আচরণ করেন ওই শিক্ষক। দীর্ঘ ৬ মাস ধরে এই জিনিস চলছিল। প্রধান শিক্ষিকাকে ঘটনাটি জানানো হলেও, তিনি কোনও গুরত্ব দেননি। মঙ্গলবারও যথারীতি স্কুলে একই কাণ্ড ঘটান ফিরোজ। একথা জানাজানি হতেই স্কুলে এসে ক্ষোভে ফেটে পড়েন অভিভাবকরা। প্রথমে তাঁরা স্কুলে এসে বিক্ষোভ দেখান।

কিন্তু এবার আর অভিযোগ জানানো নয়, স্কুলে গিয়ে অভিযুক্ত শিক্ষক ফিরোজ খানকে রীতিমতো অর্ধনগ্ন করে বেধড়ক মারধর করতে শুরু করেন অভিভাবকরা। খবর পেয়ে ইন্দাস প্রাথমিক বালিকা বিদ্যালয়ে যায় পুলিশ। কোনওমতে ওই শিক্ষককে উদ্ধার করে নিয়ে যাওয়া হয় থানায়। স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা কাজল সাহার দাবি, তাঁর কাছে ফিরোজ খানের বিরুদ্ধে ছাত্রীদের সঙ্গে অশালীন আচরণের মৌখিক অভিযোগ করেছিলেন এক অভিভাবক। তিনি লিখিত অভিযোগ করতে বলেছিলেন। কিন্তু তা করা হয়নি, উলটে আলোচনার মাধ্যমে বিষয়টি মিটিয়ে নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছিলেন অভিভাবকরাই। তাই এ বিষয়ে কোনও পদক্ষেপ করেননি। অভিযুক্ত শিক্ষক ফিরোজ খানের অবশ্য কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

 

Spread the love