দেশ প্রথম পাতা

গাড়ি পার্কিং করা নিয়ে সামান্য বচসা থেকেই ধর্মীয় মন্দিরে হামলা! ক্ষুব্ধ অমিত শাহ, দিল্লির পুলিশ কমিশনারকে ধমক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর

নিজস্ব সংবাদদাতা: এবার রাজধানী দিল্লির বুকে সাম্প্রদায়িক সংঘর্ষ। পার্কিং নিয়ে দুই গোষ্ঠীর বিবাদে হামলা চলল একটি মন্দিরের উপর। ভেঙে চুরমার করে দেওয়া হল হিন্দু দেবদেবীর মূর্তি। সমস্ত ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। শুধু তাই নয়,  বুধবারই দিল্লির পুলিশ প্রধান অমূল্য পট্টনায়েককে তলব করেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পর পট্টনায়ক বলেন, রুটিনমাফিক দিল্লির চাঁদনী চকের ঘটনা নিয়ে তাঁকে ব্রিফ করেছি। এখন সেখানে কী পরিস্থিতি রয়েছে, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে, সব তিনি জানতে চেয়েছেন। গোটা ঘটনার রিপোর্ট স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, রবিবার পুরানো দিল্লির হাউজ কাজি অঞ্চলে গাড়ি পার্কিং করা নিয়ে দুই ব্যক্তির মধ্যে ঝগড়া হয়। তারপর সামান্য বচসা থেকেই তা দুই গোষ্ঠীর মধ্যে সংঘর্ষের আকার নেয়।তারই জেরে এলাকার একটি প্রাচীন মন্দিরে ইটবৃষ্টি করা হয়। ওই ঘটনায় দু’টি এফআইআর দায়ের করা হয়েছে। এখনও অবধি গ্রেফতার হয়েছে তিনজন। পুলিশ দু’তরফের কাছেই শান্তির জন্য আবেদন জানিয়েছে।পুলিশ কমিশনার বলেন, এলাকায় শান্তি বজায় রাখার জন্য সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।খোদ রাজধানীর বুকে এহেন ঘটনায়, দিল্লির পুলিশ কমিশনার অমূল্য পট্টনায়কের সঙ্গে বুধবার আলোচনায় বসেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। সমস্ত পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট তলব করেন তিনি। বৈঠকের পর সাংবাদিকরে পট্টনায়ক জানান, সার্বিক পরিস্থিতিই তাঁর কাছে জানতে চেয়েছেন শাহ। আপাতত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে। তিনি আরও জানান, স্পর্শকাতর এলাকায় যথেষ্ট বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। ওই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ইতিমধ্যে চার অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে বাকি হামলাকারীদের চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। কোনওভাবেই এলাকার শান্তি বিঘ্নিত হতে দেওয়া যাবে না বলেও আশ্বাস দিয়েছেন পুলিশ কমিশনার। পুলিশ বাহিনীর পাশাপাশি ওই এলাকায় ১ হাজার সিআরপিএফ জওয়ানও মোতায়েন করা হয়েছে। এখনও এলাকায় উত্তেজনা রয়েছে। বন্ধ রয়েছে দোকানপাট।

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।