কলকাতা প্রথম পাতা

কাক-পক্ষীও টের পেল না, নবান্ন থেকে মমতার কনভয় সোজা গেল ভবানীভবন!

নিজস্ব প্রতিনিধি: পাখি-পক্ষীও টের পেল না। এমনকি পুলিশের শীর্ষকর্তারাও অন্ধাকারেই রয়ে গেলেন। প্রতিদিনের মতো নবান্নে রাজ্যের খুঁটিনাটি হিসাব দেখছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। এতদুর স্বাভাবিকই ছিল। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রীর কনভয় নবান্ন ছেড়ে বেরিয়ে কালীঘাটের দিকে না গিয়ে আচমকা গাড়ি পৌছে গেল ভবানী ভবনে। সাংবাদিকরাও কোন আঁচ পায়নি। তাই রীতিমত থতমত খেতে হয় ভবানী ভবনে রাজ্যের গোয়েন্দা বিভাগের (সিআইডি) সদর দফতরের সিনিয়র অফিসারদের। জানা গিয়েছে,  রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়, রাজ্য পুলিশের ডিজি সি বীরেন্দ্র, রাজ্যের নিরাপত্তা উপদেষ্টা সুরজিৎ করপুরকায়স্থ এবং এডিজি আইনশৃঙ্খলা জ্ঞানবন্ত সিং-সহ পুলিশের আরও কয়েক জন পদস্থ কর্তার সঙ্গে বৈঠক করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু প্রশ্ন হল, হঠাৎ মুখ্যমন্ত্রী নবান্ন থেকে বেরিয়ে কেন ভবানী ভবন গেলেন? তবে এই বিষয়ে মুখ খুলতে কেউ রাজি নন। এমনকি পুলিশকর্তাদের সাথে তাঁর কোন বিষয়ে কথা হয়েছে তাও কেউ জানাতে রাজি নয়।তবে বেশকিছু সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মুখ্যমন্ত্রী শুধু বলেন, “রুটিন ভিজিট ছিল”। তবে অনেকেই বলছেন, সারদা-নারদা নিয়ে রোজ যেভাবে গোয়েন্দাদের মুখোমুখি হতে হচ্ছে শাসক নেতাদের তা ভালো চোখে নিচ্ছে না তৃণমূল।তাদের দাবি প্রতিহিংসার জেরে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থাকে কাজে লাগিয়ে তৃণমূল নেতাদের টার্গেট করছে বিজেপি। তবে বিজেপির এই প্রতিহিংসার জবাব দিতেই সম্ভবত পুলিশ প্রশাসনের সাথে আলাদা করে বৈঠক সেরে রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

Spread the love