জেলা প্রথম পাতা

বদনামের গ্রাম থেকে নিজের নতুন ইনিংস শুরু করতে চান ভারতী

নিজস্ব প্রতিনিধি— যে গ্রামের মানুষের কাছ থেকে নিজের কেরিয়ারের ‘বদনাম’ নিতে হয়েছিল, সেই গ্রাম থেকেই লোকসভা নির্বাচনীর প্রচার শুরু করতে চান একসময়ের তৃণমূলের ‘গুডবুক’-এ থাকা প্রাক্তন আইপিএস অফিসার ভারতী ঘোষ। আসন্ন লোকসভা ভোটে ঘাটালের বিজেপি প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন তিনি। বিজেপি সূত্রের খবর, আগামী ২৫ তারিখ থেকে প্রচারে নামবেন ভারতী।

শুক্রবার ভারতী ঘোষ বলেন, ‘দলের নির্দেশে ভোটে লড়ছি। সোমবার একটি কর্মিসভার মাধ্যমে নির্বাচনী প্রচার শুরু করব। মূল প্রচার শুরু করতে চাই দাসপুরের সেই গ্রাম থেকে, যেখানকার একটি ছেলেকে দিয়ে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যে মামলা করিয়েছিলেন তৃণমূলের নেতা-মন্ত্রীরা।’ ভারতীর বক্তব্য, ‘বিচারাধীন বিষয় নিয়ে কোনও মন্তব্য করব না। প্রচারে কী বলব, তা মঞ্চে দাঁড়িয়েই জানাব আমাকে দিয়ে কী কী করানো হয়েছে, সব বলব সবাইকে। মানুষ এর বিচার করবেন, তৃণমূল ঠিক বলছে, না আমি ঠিক বলছি। ৩০ বছরের চাকরি জীবনে আমার বিরুদ্ধে কেউ কোনও অভিযোগ করতে পারেনি। যেই আমি মাথা উঁচু করে চাকরি ছেড়ে দিলাম সঙ্গে সঙ্গে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যে মামলা দায়ের করল।’ঘাটালের বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষ প্রসঙ্গে তৃণমূলের জেলা সভাপতি অজিত মাইতি এদিন বলেন, ‘আপাদমস্তক দুনীর্তিতে যুক্ত ওই মহিলা। এই জেলার পুলিশ সুপার থাকাকালীন কম অন্যায়-অত্যাচার করেননি। মানুষ তা ভুলে যায়নি। ভোটে সবাই সেই জবাব দেবে।’

এদিকে, ভারতী ঘোষকে প্রার্থী হিসেবে পেয়ে বাড়তি উৎসাহ, উদ্দীপনা গেরুয়া শিবিরে। দাসপুরের এক বিজেপি কর্মী বলেন, ‘লড়াইটা দিতে পারবেন। দেবের বিরুদ্ধে এমনই একটা প্রার্থী দরকার ছিল’। বিজেপির ঘাটাল সাংঠনিক জেলার প্রাক্তন সভাপতি রতন দত্ত বক্তব্য, ‘ভারতী ঘোষ লড়াকু প্রার্থী। তাছাড়া উনি ব্যক্তিগত ভাবে অনেক অসহায় মানুষের পাশে থেকেছেন। চাকরিতে থাকাকালীন উনি যা করেছেন, সবই তৃণমূলের নির্দেশে। তাই মানুষ সব বুঝে ভোট দেবেন।’

উল্লেখ্য, গত ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে ঘাটাল কেন্দ্র থেকে অভিনেতা দেব প্রায় আড়াই লক্ষের বেশি ব্যবধানে জয়লাভ করেছিলেন। রাজনৈতিক মহল মনে করেন, তার কারণ, সেই সময় দেবের বিপরীতে তেমন কোনও হেভিওয়েট প্রার্থী ছিল না। তবে এবার তাঁর বিপরীতে ভারতী ঘোষের মতো হেভিওয়েট প্রার্থী হওয়ায় ঘাটাল কেন্দ্রে লড়াই জমবে।

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।