aamar sakal: Angry Chief Minister, Government employees cut duty on Nawab's staff for terror
কলকাতা প্রথম পাতা

আমার সকাল: করোনা আতঙ্কের জন্য নবান্নের আমলার ওপর ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী, সরকারি কর্মীদের ডিউটি কাঁটছাট করলো সরকার

নিজস্ব প্রতিনিধি:  সাধারণ মানুষ থেকে প্রভাবশালী ব্যাক্তি, বিদেশ থেকে ফিরলে প্রত্যেকের পরীক্ষা করতে হবে, করোনা ভাইরাস থামাতে মঞ্চে উঠে সাধারণের উদ্দেশ্যে বার্তা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। অনেক সময় মানুষ বুঝতে না পেরে ভালো আছি বললেই হবে না, ১৫ থেকে ২৭ দিন বাড়িতে আইশোলেশনে রাখতে হবে।খোদ মুখ্যমন্ত্রী বার বার অনুরোধ করছেন, নাগরিকদের দায়িত্বশীল হতে। আর্জি জানাচ্ছেন, নিজে সুস্থ থেকে অন্যকে সুস্থ থাকতে সাহায্য করুন। সরকারের বিভিন্ন স্তর থেকে সচেতনতামূলক প্রচার চালানো হচ্ছে একই উদ্দেশ্যে।

সকলে দায়িত্বশীল হয়ে করোনাভাইরাসের মতো মারণ-আক্রমণ ছড়িয়ে পড়া যাতে রোখা যায়। কিন্তু, তার মধ্যেই প্রকাশ্যে এল এ রাজ্যেরই এক শীর্ষ আমলার চরম দায়িত্বজ্ঞানহীন কাজ। ওই আমলার ছেলের শরীরে করোনাভাইরাসের প্রমাণ মিলেছে। তিনিই করোনাভাইরাসে রাজ্যের প্রথম আক্রান্ত। গোটা ঘটনায় ক্ষুব্ধ স্বাস্থ্য দফতরের কর্তারা। গোটা ঘটনায় ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও।তবে রাজ্যে করোনা আক্রান্তের খোঁজ মিলতেই আরও কড়া সিদ্ধান্তের পথেই হাঁটলো রাজ্য সরকার। একের পর এক কঠোর সিদ্ধান্ত নিয়ে চলেছে রাজ্য সরকার।

আমার সকাল : করোনা আতঙ্ক! হোম কোয়ারেন্টাইন-এ গেলেন স্বরাষ্ট্রসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় ও তাঁর স্ত্রী

এবার রাজ্য সরকারি কর্মীদের সিফট কমিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করলেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, সরকারি কর্মচারীদের কাজের সময় এক ঘণ্টা কমিয়ে দেওয়া হল। এখন সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৫টা পর্যন্ত অফিস করতে হয় সরকারি কর্মীদের। এবার থেকে সেটা এক ঘণ্টা কমিয়ে বিকেল ৪টের সময়েই ছুটি হয়ে যাবে।

সরকারি কর্মীরা যাতে বাসে ট্রেনে ভিড় বাড়ার আগেই বাড়ি ফিরতে পারেন তার জন্যই এই সিদ্ধান্ত বলে জানিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার থেকেই নতুন সিফট শুরু হবে। গোটা রাজ্যেই রাজ্য সরকারি কর্মচারীরা এই সুযোগ পাবেন। এছাড়াও তিনি বলেন, কোনও সরকারি কর্মী অসুস্থ হলে তাদের ছুটি নিয়ে কোনও সমস্যা হবে না। অনলাইনে ছুটির আবেদন করলেও চলবে।

 

Spread the love