অফবীট আন্তর্জাতিক প্রথম পাতা

তুরস্কের ইস্তানবুলের একটি হাসপাতালে অসুস্থ সন্তানকে নিয়ে হাজির হল একটি মা বিড়াল।

অসুস্থ ছানাকে নিয়ে চিকিৎসকের কাছে হাজির বিড়াল ,সন্তান অসুস্থ হলে মা কি স্থির থাকতে পারে? যে কোনও মা’ই এরকম পরিস্থিতিতে হাসপাতালেই তো ছুটবেন। কিন্তু সেই মা যদি হয় একটি বিড়াল, তাহলে? তাহলেও সে মা। সে মানুষ বা মনুষ্যেতর। কোনও ভেদ নেই। সন্তানকে নিয়ে ঠিক একইরকম চিন্তিত হবে। আর এই দাবি যে সত্য, তা আরেকবার প্রমাণ করে মিলল। তুরস্কের ইস্তানবুলের একটি হাসপাতালে অসুস্থ সন্তানকে নিয়ে হাজির হল একটি মা বিড়াল।
যখন গোটা পৃথিবী করোনার আঁচড়ে কামড়ে ক্ষতবিক্ষত, আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা ক্রমেই বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে তুরস্কের এই ছবি যেন মানুষের মনে এক ঝলক তাজা হাওয়া বইয়ে দিয়ে গেল। ইস্তানবুলের এক বাসিন্দা টুইটারে একটি ছবি শেয়ার করেছেন।

সেখানে দেখা যাচ্ছে একটি বিড়াল তার সন্তানের ঘাড় কামড়ে ঝোলাতে-ঝোলাতে নিয়ে আসে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে। চিকিৎসকরা অবশ্য বিষয়টি বুঝতে পেরে আর দেরি করেননি। সঙ্গেসঙ্গে শাবকটির চিকিৎসা শুরু করেন।
এমনকী চিকিৎসকরা যতক্ষণ না পর্যন্ত শাবকটির চিকিৎসা শুরু করছিল, ততক্ষণ সেখানেই ঠায় বসেছিল মা বিড়ালটি। পরিস্থিতি দেখে শুধু শাবকটির পরিচর্যাই নয়, তাকে দুধও খাওয়ান চিকিৎসকরা। এরপর তাদের পশু চিকিৎসকের কাছে পাঠানো হয়। গোটা ঘটনায় অবাক হয়ে গিয়েছেন সকলেই। সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় তুলেছে এই ছবি। সকলেই একবাক্যে স্বীকার করে নিচ্ছেন, মা শব্দটাই যথেষ্ট, সেটা যে কোন প্রাণীর ক্ষেত্রেই। মা মানেই স্নেহময়ী। একটি বিড়ালও তা প্রমাণ করে।

Spread the love