দেশ প্রথম পাতা

অন্ধ্রপ্রদেশে চাষের সময় জমিতে ৬০ লক্ষ টাকার হিরে! কপাল ফিরল কৃষকের

নিজস্ব প্রতিনিধি : মাটি খুঁড়ছিলেন অন্ধ্রপ্রদেশের এক কৃষক। আর সেই মাটি খুঁড়তে গিয়েই বেরিয়ে এল বহুমূল্যের পাথর! যেন-তেন রতন নয়! পাথরটি পরীক্ষা করেই অবাক দোকানের মালিকের। চোখের সামনে দেখল এত বড় একটা হিরে। বাজার মূল্য অন্তত ৬০ লক্ষ টাকা!

এমনই চমকপ্রদ কাণ্ডে একপ্রকার তাজ্জব অন্ধ্রপ্রদেশের কুর্নুল জেলার গোল্লাভানেপল্লী। মাটি খুঁড়ে বহুমূল্যের হিরে পেয়ে গিয়েছেন তিনি। আর সেই হিরের আনুমানিক মূল্য প্রায় ৬০ লক্ষ টাকা। স্থানীয় এক হিরে ব্যবসায়ীর কাছেই তিনি বিক্রি করতে যান ওই হিরে। আর তাঁর কাছ থেকে জানা গিয়েছে যে, ওই কৃষকের নাম আল্লাহ বক্স। ইতিমধ্যেই ওই চাষির থেকে ১৩.৫ লক্ষ টাকা ও পাঁচ তোলা সোনার বিনিময়ে হিরেটি কিনেছেন এক স্থানীয় হিরে ব্যবসায়ী।

আল্লাহ বক্স নামের ওই হিরে ব্যবসায়ীর মতে, হিরা কেটে পালিশ করার পরে তার দাম প্রায় ৬০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত হতে পারে। অভিজ্ঞ কারিগর দিয়ে পালিশ করলে তবেই মিলবে হিরের আসল মূল্য। তবে, হিরেটির আকার, রঙ বা অন্যান্য তথ্য এখনও খোলসা করেননি ওই হিরে ব্যবসায়ী।

তবে আল্লাহ বক্সের এই হিরে পাওয়ার ঘটনায় পুলিশ বলছেন, তাঁরা কিছুই জানেন না ঘটনা সম্পর্কে। সংবাদমাধ্যমের কাছে এই খবর পাওয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই পুলিশের তরফে শুরু হয়েছে তদন্ত।

প্রতি বছর বর্ষার সময়ে তুঙ্গভদ্রা ও হুন্ডরী নদীর আশেপাশে তাঁবু করে থাকতে শুরু করেন অনেকে। লক্ষ্য একটাই। বর্ষায় ধুয়ে আসা বালি-কাদার মধ্যে হিরের খোঁজ চালানো। সফলও হন কেউ কেউ। চলতি বছরেই ১২ জুন জন্নাগিরি গ্রামে ভেড়া চড়াতে বেরিয়ে হিরে খুঁজে পান এক ভেড়া-পালক। প্রায় ৫০ লক্ষ টাকা বাজার দরের সেই হিরেটি তিনি বিক্রি করেন ২০ লক্ষ টাকায়।