কলকাতা জেলা দেশ প্রথম পাতা

শক্তি হারাচ্ছে প্রদেশ কংগ্রেস, মনে অভিমান নিয়েই হাতে পদ্ম তুলে নিলেন দক্ষিন কলকাতার দাপুটে নেতা রাকেশ সিং

নিজস্ব প্রতিনিধি: বিজেপিতে যোগ দিলেন দক্ষিণ কলকাতা জেলা কংগ্রেসের লড়াকু নেতা রাকেশ সিং। সোমবার দিল্লিতে দীনদয়াল উপাধ্যায় মার্গের অফিসে তিনি গেরুয়া শিবিরে নাম লেখান। বিজেপি নেতা মুকুল রায় তাকে গলায় উত্তরীয় পরিয়ে দলে স্বাগত জানান।১৭ বছর কংগ্রেসের সঙ্গে যুক্ত থাকার পর আচমকাই কেন বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন তিনি? এমন প্রশ্নের উত্তরে অভিমানী দেখিয়েছে রাকেশকে। তিনি বলেন, “কঠিন সময় কখনওই দলের সাহায্য পাইনি। আমাকে একাধিকবার ভুয়ো মামলায় জেলে ভরা হয়েছিল। একটি মামলায় তো রাজ্য সরকারের হয়ে কংগ্রেস নেতা অভিষেক মনু সিংভি আমার বিরুদ্ধে আদালতে দাঁড়িয়ে ছিলেন। পাল্টা রাম জেঠমালানি আমার পক্ষে সাওয়াল করায় এখন আমি মুক্ত। না হলে আমাকে হাজতবাস করতে হত।” সম্প্রতি তার পুত্র সাহেব সিং কানাডা থেকে ফিরেছেন। ছাএ সাহেবকে অভিযোগ ছাড়াই জেরা করার নাম করে কলকাতা পুলিশ তার পুত্রের ওপর ব্যাপক অত্যাচার চালিয়েছে বলে অভিযোগ রাকেশের গলায়।

এর বিরুদ্ধে তিনি কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছেন বলেও জানিয়েছেন। এক্ষেত্রে দলের কোনও নেতা ন্যূনতম সাহায্য তাকে করেননি বলেই অভিযোগ রাকেশের। তাই পদ্ম শিবিরে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এই ডাকাবুকো কংগ্রেস নেতা। রাকেশ সিংয়ের সঙ্গে দক্ষিণ কলকাতা কংগ্রেস সংখ্যালঘু সেলের কমপক্ষে ৩৫ জন সক্রিয় নেতা-কর্মী বিজেপিতে নাম লেখাবেন বলেও দাবি করা হয়েছে।তবে তার দল ছাড়া প্রসঙ্গে কংগ্রেস নেতা আশুতোষ চট্টোপাধ্যায় বলেন, “রাকেশ সিং আমাদের লড়াকু নেতাদের মধ্যে একজন। কিন্তু তিনি যে দলে যোগ দিতে যাচ্ছেন সেই দল তাকে বিভাজনের রাজনীতি শেখাবে। তাই তার দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত ওকে কোনও ভাবেই মেনে নিতে পারছি না।” প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে কলকাতা বন্দর বিধানসভায় পুর মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের বিরুদ্ধে বাম কংগ্রেস জোটের প্রার্থী ছিলেন রাকেশ সিং।

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।