কলকাতা প্রথম পাতা

রমজানের সময় ভোট! পুনর্বিবেচনার আর্জি প্রদেশ কংগ্রেসের

নিজস্ব প্রতিনিধি— দীর্ঘদিন ধরে ভোটের বাদ্যিবজার জল্পনা চললেও অবশেষে রবিবার জাতীয় নির্বাচন কমিশন ঘোষণা করল আসন্ন লোকসভা ভোটের দিনক্ষণ। আগামী ১১ এপ্রিল প্রথম দফার ভোটগ্রহণ। এদিকে সপ্তম তথা শেষ দফার ভোট ১৯ মে। আর এখানেই সমস্যা। কারণ, আগামী ৫ মে থেকে রমজান মাস শুরু হওয়ার কথা। আর ওই দিন যদি রমজান মাস শুরু হয়ে যায়, তাহলে সাধারণ মানুষের কষ্ট হবে বলে আশঙ্কা করেছে তৃণমূল, কংগ্রেস রাজনৈতিক দলগুলি। যদিও শাসকদলের এই মন্তব্যের তীব্র সমালোচনা করেছে বিজেপি। রমজানে ভোট প্রসঙ্গে রাজ্যের মন্ত্রী তথা তৃণমূল নেতা ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন পশ্চিমবঙ্গে সাত দফায় ভোট করাতে চাইছে। এটা তাদের ব্যপার। আগেও এ রাজ্যে একাধিক দফায় নির্বাচন হয়েছে। আমরা প্রস্তুত আছি। তবে গরমে এবং রমজান মাসে সাত দফায় নির্বাচন। মানুষের কষ্ট তো হবেই।’ 
একই সঙ্গে রমজান মাসের মধ্যে যে দিনগুলিতে নির্বাচন পড়েছে সেগুলি যাতে পুনর্বিবেচনা করা যায় তার জন্য নির্বাচন কমিশনের কাছে আবেদন করেছেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র। বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রে সকলের অংশগ্রহণ সুনিশ্চিত করতে কমিশনকে বিষয়টি খতিয় দেখার আবেদন করেন তিনি।

অপরদিকে, বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা জানান, ভয় পেয়েছে তৃণমূল। ভয়ে তাদের পা ঠকঠক করে কাঁপছে। তাই প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করতে পারছে না তারা। কারণ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানেন, প্রার্থীতালিকা ঘোষণা হলেই বিস্ফোরণ হবে।  তিনি বলেন, তৃণমূল ইতিমধ্যে বলতে শুরু করেছে ‘রমজানে ভোট’। এর আগে কি রমজানে ভোট হয়নি? প্রশ্ন রাহুল সিনহার।

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।