দেশ প্রথম পাতা

বাইপাস সার্জারি করে রাফায়েলের নথি সরানো হয়েছে,পাকিস্তানের পোস্টার বয় মোদী! নিশানা রাহুলের

নিজস্ব সংবাদদাতা: রাফাল কেলেঙ্কারিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে আক্রমণের তেজ আরও বাড়িয়ে দিলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। বললেন, ওঁর বিরুদ্ধে যথেষ্ট তথ্য ও প্রমাণ রয়েছে। রাফাল চুক্তিতে প্রতিরক্ষা মন্ত্রককে বাইপাস সার্জারি করেছেন মোদী।

এর আগে সুপ্রিম কোর্টে হলফনামা দিয়ে সরকার জানিয়েছিল যে রাফাল চুক্তিতে প্রধানমন্ত্রীর সচিবালয়ের কোনও ভূমিকা ছিল না। প্রতিরক্ষা ক্রয় নীতি অনুযায়ী যাবতীয় দরকষাকষি করেছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রক। কিন্তু ‘দ্য হিন্দু’ সংবাদপত্রে উপর্যুপরি প্রতিবেদনে প্রকাশ করা হয়েছে, কী ভাবে প্রতিরক্ষা মন্ত্রককে এড়িয়ে রাফাল চুক্তিতে নাক গলিয়েছিল প্রধানমন্ত্রীর সচিবালয়। প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের রাফাল-নথি ফাইল নোটিং সহ প্রকাশ করেছে ওই সংবাদপত্র।কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীর দাবি, রাফাল কাণ্ডে তদন্ত হোক প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধেও।

৩৬টি রাফাল বিমান কেনার ক্ষেত্রে মোদী সরকারের ভূমিকা নিয়ে বৃহস্পতিবার রাহুল সাংবাদিকদের বলেন, ‘‘আমি আর নতুন করে কোনও অভিযোগ করতে চাই না। আর কিছু বলার নেই আমার। ওই সব নথিপত্রের ব্যাপারে সরকারের তরফেই তো সব কিছু বলে দেওয়া হয়েছে।’’ সুপ্রিম কোর্টে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, রাফাল সংক্রান্ত যাবতীয় গোপন সরকারি নথিপত্র ‘চুরি’ হয়ে গিয়েছে।রাহুলের ইঙ্গিত, কোনও ‘নকল’ জিনিস তো আর চুরি হয় না। বলেছেন, ‘‘সরকারের তরফে আদালতে দেওয়া ওই বিবৃতিতেই স্পষ্ট সংশ্লিষ্ট নথিপত্রগুলি ভুতুড়ে ছিল না। সেখানে প্রধানমন্ত্রীর (নরেন্দ্র মোদী) নাম রয়েছে। রাফাল চুক্তিতে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের (পিএমও) কী ভূমিকা ছিল, তারও উল্লেখ রয়েছে। সেগুলি চুরি হয়ে গিয়েছে বলে সরকারই জানিয়েছে। ফলে সেই সব নথি নিয়ে আর কোনও সন্দেহ, সংশয় থাকল না। এটাই তো সবচেয়ে বড় প্রমাণ। ফলে, অন্যরা অভিযুক্ত হলে এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীকেও অভিযুক্ত হতে হবে।’’ শুধু রাফাল নয়, পাক-প্রশ্নেও এ দিন মোদীকে বিঁধতে চান রাহুল। মঙ্গলবার জনসভা থেকে প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন, যারা পাকিস্তানে এয়ার স্ট্রাইক নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন তাঁরা সবাই পাকিস্তানের পোস্টার বয়। জবাবে রাহুল আজ বলেন, পাঠানকোটে আইএসআই-কে ডেকে কে এনেছিলেন? শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে কে ঘটা করে ডেকেছিলেন নওয়াজ শরিফকে? আর কেই বা নওয়াজের নাতনির বিয়েতে রাওয়ালপিণ্ডি চলে গিয়েছিলেন বিনা নিমন্ত্রণে! পাকিস্তানের পোস্টার বয় তো মোদীই।

 

 

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।