দেশ প্রথম পাতা

দলের প্রয়োজনে প্রিয়াঙ্কা নির্বাচনে লড়াই করতে প্রস্তুত

নিজস্ব প্রতিনিধি— দল চাইলে প্রিয়ঙ্কা নির্বাচনে লড়াই করতে প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন। বুধবার লখনউতে নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে কংগ্রেসের অন্যতম সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা বদরা দলের গরিবী হঠাও প্রকল্প ‘ন্যায়’ নিয়ে বহুজন সমাজবাদী পার্টির নেত্রী মায়াবতী ও বিজেপির সমালোচনার কড়া জবাব দিয়েছেন। এসময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে প্রিয়াঙ্কা জানান, কংগ্রেস দলের পক্ষে অনুমতি দিলেই তিনি নির্বাচনে লড়াই করতে প্রস্তুত। এদিন প্রিয়াঙ্কা আমেথিতে নির্বাচনী প্রচারে অংশ নেন। তিনি জানান, সোনিয়া গান্ধির নির্বাচন ক্ষেত্র বায়বেরিলিতেও তিনি নির্বাচনী প্রচারে যাবেন। প্রিয়াঙ্কার কংগ্রেসের দায়িত্বপূর্ণ পদ দেওয়ার পিছনে রায়বেরিলি কেন্দ্রে প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি সোনিয়া গান্ধির পরিবর্তে তাকেই প্রার্থী করা হবে বলে জল্পনা শুরু হয়। কিন্তু প্রিয়াঙ্কা এতদিন রাহুল গান্ধি ও সোনিয়া গান্ধির কেন্দ্রে প্রচারের জন্যই ছোটাছুটি করছিলেন। এমনকী বারাণসী থেকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধেও তাঁকে প্রার্থী করা হতে পারে বলেও জল্পনা চলছিল। দলের পক্ষে জল্পনায় জল ঢেলে দেওয়া হয়। তবে প্রিয়াঙ্কা নির্বাচনে প্রার্থী হলে দলের কর্মী সমর্থকদের মধ্যে উৎসাহ দ্বিগুণ হবে বলে মনে করা হচ্ছিল। কিন্তু সমর্থকদের ক্রমাগত আবেদনে প্রিয়াঙ্কা নির্বাচনে তাঁর লড়াই করার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন, তবে দলের অনুমতি সাপেক্ষে। দলের ঘোষিত ন্যূনতম রোজগার যোজনার সমালোচনার উত্তরে প্রিয়াঙ্কা বলেন, কংগ্রেস কখনও ভাওতা দেওয়া শেখেনি। কংগ্রেস যা বলে তা করে দেখায়। উল্লেখ্য মায়াবতী কংগ্রেসের ন্যূনতম রোজগার যোজনা ‘ন্যায় সম্পূর্ণ ভাঁওতা বলে বিজেপির মতকেই সমর্থন করে টুইট করেন।

Spread the love

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।